করোনার মধ্যেও ৬ শতাংশ জিডিপি প্রবৃদ্ধির পূর্বাভাস

করোনার দ্বিতীয় ধাক্কার মধ্যে বাংলাদেশের চলতি অর্থবছরের জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৫ দশমিক ৫ শতাংশ থেকে ৬ শতাংশের মধ্যে থাকবে বলে পূর্বাভাস দিয়েছে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক- এডিবি।

বুধবার সকালে বাংলাদেশ ইকোনমিক আউটলুক শীর্ষক অনলাইন ব্রিফিংয়ে এমন তথ্য দেয় উন্নয়ন সহযোগী সংস্থাটি। এ সময় এডিবি’র কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন প্রকাশ বলেন, চলতি বছরের মার্চ পর্যন্ত বাংলাদেশের জিডিপি প্রবৃদ্ধি নিয়ে এডিবি’র পূর্বাভাস ছিল ৬.০৮ শতাংশ। তবে, গেল কয়েক সপ্তাহ ধরে চলমান কঠোর বিধিনিষেধে অর্থনৈতিক কার্যক্রম স্থবির হয়ে পড়ায় এডিবি মনে করছে, চলতি অর্থবছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধি কিছুটা কমবে।

এ সময় করোনাকালীন বাংলাদেশকে দেয়া এডিবি’র আর্থিক সহায়তার চিত্র তুলে ধরেন তিনি। মনমোহন প্রকাশ আরো জানান, সবার জন্য করোনা টিকা নিশ্চিত করতে বাংলাদেশ সরকারের জন্য ৯ কোটি ৪০ লাখ ডলারের আর্থিক সহায়তা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। এ অর্থ দিয়ে বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থা অনুমোদিত করোনা টিকা কিনতে পারবে সরকার। এছাড়াও টিকা পরিবহণ, প্রয়োগ ও সংরক্ষণসহ টিকা ব্যবস্থাপনার উন্নয়নেও এ অর্থ ব্যয় করা যাবে।

মনমোহন প্রকাশ বলেন, দীর্ঘমেয়াদে সংকট দূর করতে এডিবি চায় বাংলাদেশেই টিকা উৎপাদন হোক। বিশ্বের অন্যদেশের সঙ্গে দেশীয় কোনো প্রতিষ্ঠান যৌথভাবে টিকা উৎপাদন করতে চাইলে সেক্ষেত্রেও আর্থিক সহায়তা দেয়ার কথাও জানান তিনি।